YouTube এর নতুন আপডেট এসেছে Copyright Claim এবং Trending Topic এর বিষয়ে [ অবশ্যই দেখবেন ]

আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন ভাইয়ারা? অবশ্যই এটা কমেন্ট সেকশন এ জানিয়ে দিবেন। আমি আইটি এক্সপার্ট বিডির পক্ষ থেকে সকলকে স্বাগতম জানাচ্ছি। তো ইউটিউব এর শেষ দিকে ভালো ভালো কিছু আপডেট আসতেছে। তো আজকের এই পোস্ট এ আমরা YouTube এর নতুন একটা আপডেট নিয়ে কথা বলব। তো আজকের যে আপডেট টা এসেছে এটা আমি ২ টা ভাগে ভাগ করেছি। আজকের টপিক টা কপিরাইট মিউজিক এর উপর।
youtube new update,youtube new update 2019,youtube new monetization update,youtube latest update 2019,youtube monetization,youtube update,youtube monetization 2019 new rules for creator,youtube monetization update 2019,youtube monetization update,youtube monetization new update,youtube updates,new update youtube,youtube new update for channel monetization,update,new update for youtube,ITExpertBD
YouTube New Update 2019

আমরা অনেক সময় ভিডিও আকর্ষণীয় অথবা মজা দেওয়ার উদ্দেশ্যে বিভিন্ন প্রকার কপিরাইট মিউজিক কারো কাছ থেকে নিয়ে আমরা ইউজ করে থাকি। কিন্তু সবচেয়ে বড় যে দুঃখের বিষয় তা হলো তখন আমাদের ভিডিও টা কপিরাইট ক্লাইম এর Under এ চলে যায়। বন্ধু রা ইউরোপীয়ান Country এর যারা বড় বড় YouTuber রা আছে তারা কিন্তু ইউটিউব এর এই সময়টাতে কোনো প্রকার Trending টপিক নিয়ে অথবা খেলাধুলার নিউজ থেকে কোনো প্রকার ছবি নিয়ে তারা কিন্তু বর্তমানে কপিরাইট এর জন্য ভিডিও তৈরি করতে পারছে না। ইউটিউব এখন Recently এসব সামান্য বিষয় নিয়ে ও সমস্যা করতেছে। কিছুদিন আগেই একটা আপডেট পোস্ট করেছে ইউটিউব এর Seo তিনি বলেছেন এসব কপিরাইট ক্লাইম, Trending Topic এসব বিষয় এর উপর বেশ কিছু পরিবর্তন করবে যেনো Creator দের সুবিধা হয়। তো এটা নিয়ে ই আজকের এই পোস্ট। পুরো পোস্ট মিলে এই টপিক টা নিয়েই আলোচনা করব। তো আমি রাব্বি আছি আপনাদের সাথে তো চলুন মেইন টপিক এ চলে যাই।



তো আমরা যারা ইউটিউব এ কাজ করে থাকি তারা সাধারণত Trending Topic বা ভাইরাল টপিক কে বেশি প্রধান্য দিয়ে থাকি। কেননা এসব বিষয় এর উপর ভিডিও বানালে ভিউ একটু বেশি আসে। আমরা যদি নতুন কিছু আসতেছে বা বর্তমানে যেটা চলতেছে বা Trend এ আসে আমরা যদি এটা নিয়ে ভিডিও গুলো বানাই তাহলে ভিডিও ভাইরাল হওয়ার সম্ভবনা বেশি থাকে এবং ভিউ অনেক বেশি হয়ে থাকে। কেননা Trending টপিক নিয়ে ভিডিও বানানোই দ্রুত চ্যানেল Grow করার জন্য যথেষ্ট। তো এখন যদি আপনি Think করেন যে Trending টপিক গুলা কই পাবেন? আমরা যারা Creator আছি, Camera আছে বা Setup আছে আমরা ঘরে বসেই ভিডিও বানাবো। আমরা তো আর ঘটনা স্থলে গিয়ে ভিডিও বানাতে পারিনা। সেক্ষেত্রে আমাদের কারো না কারো কাছে গিয়ে Fair Under এর ইউজ এ গিয়ে একটু সহায়তা নিতে হয়। কিন্তু ইউটিউব করেছে কি এই ৫ বা ১০ সেকেন্ডের ভিডিও গুলাতেও মাঝে মাঝে কপিরাইট ক্লাইম দিয়ে দেয়। মানে কোনো একটা কিছু কপি করলেই কপিরাইট Strike দিয়ে দিচ্ছে। সেক্ষেত্রে ইউটিউব নিয়ে এসেছে বড় একটা Change. তো আমি ১ টা চেন্জ কেই দুইটা ভাগে ভাগ করেছি। একটা হলো কপিরাইট ক্লাইম আর একটা হলো ট্রেন্ডিং টপিক

কপিরাইট ক্লাইম?

আপনি যদি কোনো ভিডিও নিজে করেন বা নিজের মোবাইল বা ক্যামেরা ইউজ করে Shoot করেন। কিন্তু মাঝের কিছু ভিডিও আপনি Fair ইউজ এর Under এ গিয়ে অন্যের থেকে কিছুটা ভিডিও কেটে ইউজ করেন তাহলে কিন্তু সমস্যা হয়। কিন্তু ইউটিউব এর নতুন আপডেট এর ফলে এটা নিয়ে কোনোপ্রকার প্রবলেম হবেনা। যেমন আপনার ভিডিও কে আরো আকর্ষণীয় করার জন্য Background Music ইউজ করতে পারেন অথবা ভিডিও তে ৫ বা ১০ সেকেন্ড এর কপিরাইট আছে এরকম কোনো ক্লিপ ইউজ করতে পারেন। এই ক্ষেত্রে ভিডিও টা Fair Under ইউজ এর মধ্যে পড়বে। একটা সময় এটা নিয়ে কিন্তু খুবই প্রবলেম ছিলো। কিন্তু ইউটিউব এর নতুন আপডেট মানে গত ৩০ শে এপ্রিল আপডেট এর ফলে এই Fair Use টা করা যাবে। কিন্তু আবার ভিডিও তে যদি ভিডিওর মেইন Owner যদি Review এর জন্য Request করে সেক্ষেত্রে ইউটিউব আগে ভালোভাবে পর্যবেক্ষণ করে দেখবে Then যদি দেখে নীতিমালা ভঙ্গ করেছে তখন Copyright Strike টা দিয়ে দিবে। এই বিষয় টা কিন্তু যারা Fair Under এর Use নিয়ে ভিডিও বানাই বা Trending Topic নিয়ে ভিডিও তৈরি করে তাদের জন্য বিষয় টা অনেক উপকারে আসবে৷




Trending Topic?

যারা Toys,Kids বা Family Friendly নিয়ে ভিডিও গুলো বানান। এখন বাংলাদেশ এ এরকম হয়না যে Family এর সকলে মিলে, বাচ্চাদের নিয়ে একসাথে ভিডিও দেখি। তারপর ও আবার অনেক টাই হয়। বাইরের Country গুলাতে তো হয়েই থাকে সবসময়। যে পরিবারের সকলে মিলে Kids বা কোনো Movie এগুলো দেখছে। তবে বাংলাদেশেও এটা ধীরে ধীরে চালু হচ্ছে। এখন যদি আপনি কোনো এক নিউজ চ্যানেলের এর কমেন্ট এ গিয়ে দেখবেন গালাগালি দিয়ে ভর্তি। এই ক্ষেত্রে যারা দেখা যাচ্ছে আওয়ামীলীগকে সাপোর্ট করে তারা বিএনপি কে গালি দিচ্ছে। অপরদিকে বিএনপির সাপোর্টার রা আবার তাদের কে গিয়ে গালি দিচ্ছে, এটা পলিটিকাল দিক দিয়ে। এখন ইউটিউব এটা বলেছে যে ভিডিও তে খারাপ কমেন্ট গুলা বেশি পড়বে সেসব ভিডিও র কমেন্ট সেকশন ডিজেবল করে দিবে। তো ইউটিউব এর এই আপডেট এর বিষয়ে কিছু মানুষ কথা বলেছিল তো তাদের মন্তব্য গুলোর Reply দিয়ে এটা বলেছে যে আপনারা কয়েকজন মোডারেটর রাখতে পারেন আপনার চ্যানেলের জন্য। তো মোডারেটর রাখলে তারা, যেসব Hate বা খারাপ কমেন্ট গুলা পড়বে সেগুলো সাথে সাথে তারা ডিলিট করে দিবে। ডিলিট করে দিলেই তাহলে আর কোনো সমস্যা হবেনা। কিন্তু আপনি যদি প্রচুর পরিমাণে Hate কমেন্ট পড়ার পরও যদি সেগুলো ডিলিট না করেন তাহলে সেই ক্ষেত্রে কমেন্ট সেকশন টা ডিজেবল হয়ে যাবে।



তো এই ছিলো আজকের টপিক

তো কেমন লাগলো আপনাদের পোস্ট টা। যদি পোস্ট টা ভালো লেগে থাকে প্লিজ Must Be একটা শেয়ার করবেন। আর আমাদের একটা অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেল আছে প্লিজ আপনারা আমাদের চ্যানেল টা অবশ্যই Subscribe করে আসবেন। আমাদের ইউটিউব চ্যানেল লিংক

আমরা আমাদের এই ব্লগ এ এবং আমাদের ইউটিউব চ্যানেল এ এই ধরনের টিউটোরিয়াল প্রায়ই দিয়ে থাকি। তো সবসময় ভালো কিছু পেতে আমাদের সাথেই থাকবেন। ধন্যবাদ।

Post a Comment

0 Comments